মাশরাফি আসলেই বদলে যায় বাংলাদেশ

মাশরাফি আসলেই বদলে যায় বাংলাদেশ

মাশরাফি নামটা একজন ক্যারিশমাটিক নেতার নাম। যিনি আসেন আর দলকে রাঙিয়ে দেন জয়ের আনন্দে। হাজারো হতাশার মাঝেও তার উপস্থিতিতেই বদলে যায় বাংলাদেশ। তিনি খেলেন, খেলান এবং দল জেতান। এটাই হলো তার ম্যাশ ম্যাজিক!

টেস্ট সিরিজে হোয়াইটওয়াশের কঠিন স্মৃতি ভুলে রঙিন পোশাকে বাংলাদেশের ঘুরে দাঁড়ানোটা ছিলো অনেক বড় চ্যালেঞ্জ। বাংলাদেশের সেই চ্যালেঞ্জে আশার আলো দেখালেন ওয়ানডে অধিনায়ক মাশরাফি বিন মর্তুজা। হতাশার পরাজয়ে ডুবে থাকা দলটিকে আবারও টেনে তুললেন ক্যাপ্টেন জাদুকর ম্যাশ। তার উপস্থিতির ফ্যাক্টরটাই উজ্জ্বীবিত করে রাখলো পুরো টাইগার শিবিরকে।

অথচ এই সিরিজে তার খেলা নিয়েই ছিলো অনেক শঙ্কা। স্ত্রী অসুস্থ থাকায় এই ওয়ানডে সিরিজে তার খেলতে আসার কথা ছিলো না। কিন্তু টেস্ট সিরিজে বাজে পারফরমেন্সে নেতিয়ে পড়া সতীর্থদের মনোবল ফেরানোর তাগিদকেই বেশি অগ্রাধিকার দেন অধিনায়ক। অসুস্থ স্ত্রীকে রেখে সফরে যোগ দেন দলের সঙ্গে। আর দলে এসেই বদলে দেন সতীর্থদের।

রঙিন পোশাকে জয়ে ফেরার দিন মাঠে নামার আগে সতীর্থদের বলেন, দেশের জন্য হৃদয় উজাড় করে খেলতে। অধিনায়কের কথারই প্রতিফলন দেখান সতীর্থরা। ব্যাট-বলে পুরো দলের অলরাউন্ড পারফরম্যান্স। তামিমের বড় সেঞ্চুরি, সাকিবের ৯৭ রান, মুশফিকের ১১ বলে ৩০ রান।

আর বোলিংয়ে অধিনায়ক মাশরাফি ১০ ওভারে ১ মেডেনসহ মাত্র ৩৭ রানে নেন ৪ উইকেট। সবকিছু মিলিয়ে প্রথম ওয়ানডেতে স্বাগতিকদের ৪৮ রানে হারিয়ে তিন ম্যাচের সিরিজে ১-০ তে এগিয়ে যায় বাংলাদেশ।

কিন্তু দুঃস্বপ্নের মতো কাটানো টেস্ট সিরিজের পর হতাশার সাগরে ডুবে ছিল টাইগার শিবির। যার জন্য বিসিবি প্রধানের নানা বিতর্কিত কথা শুনতে হয় পুরো দলকে। সব মিলিয়ে অনেকটা ছন্নছাড়া অবস্থাতেই সফরে ছিল সাকিবের বাংলাদেশ। সেই দলটিকে আলোর পথে আনাটা সহজ ছিলো না।

কিন্তু এই কঠিন কাজটা করার সাহস মাশরাফি ছাড়া কার আছে। তিনি তো মাশরাফি। তার দায়িত্বই যেন পুরো দলকে উজ্জ্বীবিত করে রাখা। দলের বদলের যাওয়ার দিনে নিজের পারফর্মেও নজড় কেড়েছেন সবার।

ছয় মাস পর বল হাতে এসেই প্রথম শিকারে এভিন লুইসকে আউট করেন। তারপর জ্যাসন হোল্ডার এবং আন্দ্রো রাসেলকেও নিজের শিকার বানান। আর শেষের দিকে অ্যাসলে নার্সের উইকেট নিয়ে মাশরাফি আরেকবার জানিয়ে দিলেন কেন তাকে বাংলাদেশের ক্যারিশমাটিক নেতা বলা হয়!

তাইতো ম্যাচ শেষে ধারাভাষ্যকারও প্রবল উৎসাহ নিয়ে জানতে চাইলেন দলকে উজ্জ্বীবিত করার রহস্য!

ঢাকাটাইমস

Facebook Comments

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here